চোরা শিকারীদের হাত থেকে প্রাণীদের বাঁচাতে সুন্দরবনে রেড এলার্ট

0
22

ম.ম.রবি ডাকুয়া
বাগেরহাট

চোরা শিকারীদের হাত থেকে বন্যপ্রানি হত্যা ও পাচার রোধে সুন্দরবন জুড়ে বন অধিদপ্তরের রেড এলার্ট জারি করা হয়েছে। ।বৃহাস্পতিবার থেকে চালু হয়েছে এ রেড এলার্ট জানিয়েছে বন বিভাগ।সকল ধরনের পাশ পারমিট বন্ধ ঘোষনা যেসব বনজীবিরা বনে রয়েছে তাদের বেরিয়ে যাওয়ার নির্দেশ।
সুন্দরবনের বন্য প্রাণী বাঁচাতে অবশেষে রেড এলার্ট জারি করতে হয়েছে বন বিভাগকে।বাগেরহাটের পূর্ব সুন্দরবন বিভাগের বন কর্মকর্তা (ডিএফও) জানান,বন অধিদপ্তরের নির্দেশনা অনুযায়ী বন জুড়ে রেড এলার্ট হুশিয়ারী বাস্তবায়ন চলছে।ইতমধ্যে সকল ষ্টেশন ক্যম্প ও ফাড়ি গুলোতে নির্দেশ পাঠানো হয়েছে।
বন কর্মকর্তা বলেন সুন্দরবনে সম্প্রতি বাঘ-হরিণ হত্যা পাচার বেড়ে যাওয়ায় এ রেড এলার্ট জারি করা হয়েছে।সকল দায়িত্ব পালনে কঠোর নির্দেশ দেয়া হয়েছে বন বিভাগের সকল কার্মকর্তা কর্মচারীদের।বনের অভ্যান্তরে টহল আরো জোরদারের নির্দেশও দেয়া হয়েছে।বনে ছোট নৌকা ডিঙ্গি চলাচলের ওপর নিষেধজ্ঞা আরোপ করা হয়েছে।বন্ধ করা হয়েছে সকল পাশ-পারমিটও।বনের মধ্যে যেসব জেলে বাওয়ালীরা পাশ পারমিট নিয়ে অভ্যান্তরে আছে তাদের বেরিয়ে যাবার নির্দেশ দেয়া হয়েছ।সুন্দরবনের প্রাণীকূল রক্ষায় সরকারি সকল সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নে সচেষ্ট রয়েছে তারা বলে জানান।
বিগত দুই সপ্তাহে সুন্দরবন এলাকার আশেপাশে বিপুল পরিমান হরিণের মাংস ও বাঘ হরিণের চামড়া জব্দ হওয়ায় ভাবিয়ে তুলেছে বন বিভাগ সহ পরিবেশ বিদদের সহ আইনশৃংখলা রক্ষাকারী বাহিনীকে।যাতে করে হুমকির আশংকা করা হয়েছে সুন্দরবনের প্রাণীকূলকে।গত ২০ জানুয়ারি বাগেরহাটের শরণখোলা থেকে বাঘের চামড়া সহ র‌্যাব ও বনবিভাগের হাতে পাচারকারী আটক,২২ জানুয়ারি বাগেরহাটের শরণখোলা থেকে ১৯ টি হরিনের চামড়া সহ ২ জন আটক আটক,২৫ জানুয়ারি দাকোপের পানখালি থেকে ১১ কেজি হরিণের মাংস আটক,৩১ জানুয়ারি বাগেরহাটের মোংলার দিগরাজ এলাকা থেকে ৪৭ কেজি হরিণের মাংস জব্দ,২ ফেব্রুয়ারী রামপাল থেকে ৪২ কেজি হরিণের মাংস আটক।
এর মধ্যে আরো অনেক পাচারের ঘটনা বনবিভাগকে শংকিত করেছে সেই সাথে ভাবিয়ে তুলছে পরিবেশ বিদদের বনবিভাগের এই রেড এলার্ট এবং সকল নিষেধাজ্ঞা স্থায়ী ভাবে চালিয়ে না গেলে বন্যপ্রাণী বাচানো সম্বব নয় বলে ধারনা করছে কেউ কেউ।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here