সারাদেশে করোনায় আরও ১১৭ জনের মৃত্যু

0
3

ডেস্ক নিউজ: মহামারী করোনা ভাইরাসে গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে মৃত্যুর সংখ্যা কমলেও শনাক্ত আগের দিনের তুলনায় অনেক বেড়েছে। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ১১৭ জন মারা গেছেন, যা ৫৩ দিন পর সর্বনিম্ন। এর চেয়ে কম মৃত্যু ছিল জুনের ৩০ তারিখ ১১৫ জন।

আগের দিন এই সংখ্যা ছিল ১৩৯। এ নিয়ে করোনায় দেশে মোট মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৫ হাজার ৩৩৯ জনে।

তাছাড়া গত ২৪ ঘন্টায় আগের দিনের তুলনায় সংক্রমণ বেড়েছে। নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৫ হাজার ৩১৭ জনের। এর আগের ২৪ ঘণ্টায় এই সংখ্যা ছিল ৪ হাজার ৮০৪। মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৪ লাখ ৬৭ হাজার ৭১৫ জনে।

সোমবার (২৩ আগস্ট) অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানার সই করা বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদফতর এ তথ্য জানিয়েছে।

এর আগে গত শনিবার ১২০, শুক্রবার ১৪৫, বৃহস্পতিবার ১৫৯, বুধবার ১৭২ ও মঙ্গলবার ১৯৮ জনের মৃত্যু হয়। গত ৭ জুলাই প্রথমবারের মতো দেশে করোনায় মৃতের সংখ্যা ২০০ ছাড়ায়। ১৩ আগস্ট মৃত্যুর সংখ্যা ২শর নিচে নামা শুরু করে।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, ২৪ ঘণ্টায় করোনা থেকে সুস্থ হয়েছেন ৮ হাজার ৯৮২ জন। এ পর্যন্ত মোট সুস্থ হয়েছেন ১৩ লাখ ৭২ হাজার ৮৫৬ জন। সংক্রমণ বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯৩ দশমিক ৫৪ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টায় সারাদেশে ৩৭ হাজার ৩১৭টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়, পরীক্ষা করা হয় ৩৬ হাজার ৭৮৯টি। গত ২৪ ঘণ্টায় নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে সংক্রমণ শনাক্তের হার ১৫ দশমিক ৫৪ শতাংশ।

গত ২৪ ঘণ্টার নমুনা পরীক্ষা মিলিয়ে এ নিয়ে দেশে করোনাভাইরাসের মোট নমুনা পরীক্ষা হলো ৮৬ লাখ ৮৬ হাজার ৩০৬টি। মোট নমুনা পরীক্ষার বিপরীতে সংক্রমণ শনাক্তের হার ১৬ দশমিক ৯০ শতাংশ।

২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়াদের মধ্যে ৫৩ জন পুরুষ এবং ৬৪ জন নারী। এদের মধ্যে বাসায় মারা গেছেন ৩ জন। বাকিরা হাসপাতালে মারা গেছেন। মোট মারা যাওয়াদের মধ্যে পুরুষ ১৬ হাজার ৫৯০ জন এবং নারী ৮ হাজার ৮০৯ জন।

মৃত এই ১১৭ জনের মধ্যে সর্বোচ্চ ৪০ জন ছিলেন ঢাকা বিভাগের, দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ২৯ জন চট্টগ্রাম বিভাগের ও তৃতীয় সর্বোচ্চ ১১ জন খুলনা বিভাগের। এছাড়া রাজশাহী বিভাগের ১০ জন, বরিশাল বিভাগের একজন, সিলেট বিভাগের ১৩ জন, রংপুর বিভাগের ৯ জন এবং ময়মনসিংহের ৪ জনের মৃত্যু হয়েছে।

বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে দেখা গেছে, ২৪ ঘণ্টায় ৭৪ জন ষাটোর্ধ্ব ব্যক্তি মারা গেছেন। এছাড়া ৫১ থেকে ৬০ বছরের ২৬, ৪১ থেকে ৫০ বছরের ৬, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ৯, ২১ থেকে ৩০ বছরের ১ এবং ১১ থেকে ২০ বছর বয়সী ১ জন মারা গেছেন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here