চবিতে ভর্তির আবেদন ৫ এপ্রিল থেকে

0
6

ডেস্ক নিউজ: চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের( চবি) স্নাতক (সন্মান) (২০২০-২১) শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষার আবেদন আগামী ৫ এপ্রিল শুরু হবে। যা চলবে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত। আবেদন ফি জমা দেওয়া যাবে ৫ এপ্রিল থেকে ২রা মে পর্যন্ত।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত ডিনদের নিয়ে হওয়া এক বৈঠকে এসব সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়েছে বলে জানিয়েছেন চবির ব্যাবসায় প্রশাসন অনুষদের ডিন ও সি- ইউনিটের প্রধান প্রফেসর এস এম সালামত উল্লা ভূঁইয়া।

তিনি আরও বলেন, এবার ভর্তি পরীক্ষা আগের মতো ১০০ নম্বরে এমসিকিউ পদ্ধতিতে অনুষ্ঠিত হবে। আর আগের মতোই মাধ্যমিক উচ্চমাধ্যমিকে জিপিএ নম্বর ২০ ধরা হবে। তবে এবার উচ্চমাধ্যমিককে অটোপাস হওয়ায় আমরা মেধাবী শিক্ষার্থী পেতে আবেদনের যোগ্যতা বাড়িয়েছি। প্রতি ইউনিটে এবার আগের যোগ্যতার সাথে দশমিক পাঁচ (. ৫০) বেড়ে যাবে।

এছাড়া এবারের ভর্তি পরীক্ষা কয়েক ধাপে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে অনুষ্ঠিত হওয়ার কথাও জানান তিনি।

এর আগে গত রবিবার (২২ ফেব্রুয়ারি) চলতি বছরের ভর্তি পরীক্ষার তারিখ নির্ধারণ করে কতৃপক্ষ। ওই দিন ২২ জুন চবির ২০২০-২১ শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা জানানো হয়। প্রথম ধাপে আগামী ২২ জুন থেকে ভর্তি পরীক্ষা শুরু হয়ে চলবে ২৪ জুন পর্যন্ত। দ্বিতীয় ধাপে ভর্তি পরীক্ষা চলবে ২৮ জুন থেকে পহেলা জুলাই পর্যন্ত। এবং তৃতীয় ধাপে ৫ জুলাই থেকে শুরু ভর্তি পরীক্ষা চলবে ৮ জুলাই পর্যন্ত।

ইউনিট ভিত্তিক আবেদনের যোগ্যতাঃ

বিজ্ঞান, জীববিজ্ঞান, ইঞ্জিনিয়ারিং ও মেরিন সায়েন্সেস অ্যান্ড ফিশারিজ অনুষদ অনুষদ নিয়ে গঠিত এ-ইউনিটে বিগত বছর আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা ছিলো মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকে (চতুর্থ বিষয়সহ) মোট জিপিএ ৭.৫০। এবার তা বেড়ে দাঁড়িয়েছে জিপিএ ৮.০০।

কলা ও মানববিদ্যা অনুষদভুক্ত ‘বি’ ইউনিটে আগে আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা ছিলো মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকে চতুর্থ বিষয়সহ মোট জিপিএ ৭.০০ এবার বেড়ে হয়েছে ৭.৫০।

ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদভুক্ত ‘সি’ ইউনিটে মোট সাধারণ আসন ৪৪২টি। এই ইউনিটে আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা আগে ছিলো মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকে (চতুর্থ বিষয়সহ) মোট জিপিএ ৭.৫০ এবার তা বেড়ে হয়েছে ৮.০০। এখানে বিভাগ রয়েছে ছয়টি।

অন্যদিকে সব গ্রুপের শিক্ষার্থীরাই ‘ডি’ ইউনিটে পরীক্ষা দিতে পারবেন। এখানে সমাজবিজ্ঞান অনুষদের নয়টি বিভাগ, আইন অনুষদের অধীনে থাকা আইন বিভাগ, ব্যবসায় প্রশাসনের অনুষদের সব বিভাগ, জীববিজ্ঞান অনুষদের ভূগোল ও পরিবেশবিদ্যা এবং মনোবিজ্ঞান বিভাগ রয়েছে। বিগত বছর ‘ডি’ ইউনিটে আবেদনের যোগ্যতা হিসেবে মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিকে (চতুর্থ বিষয়সহ) মোট জিপিএ ৭.০০ থাকলেও এবার তা বেড়ে হয়েছে ৭.৫০।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here