আজ সকাল থেকে দুপুর পর্যন্ত ভেজাল পণ্য উৎপাদন ও অপরিশুদ্ধ পানি সরবরাহের অপরাধে তিন ফ্যাক্টরীতে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ উমর ফারুক মোবাইল কোর্ট পরিচালনা করেন। মোবাইল কোর্ট পরিচালনাকালে বিভিন্ন অনিয়মের দায়ে নগরীর এনায়েত বাজার এলাকার তাকওয়া এন্টারপ্রাইজ কে ২০০০০(বিশ হাজার) টাকা, মিস্কা ধানসিড়ি কে ১০০০০(দশ হাজার) টাকা ও ঝাল বিতান ২০০০ (দুই হাজার টাকা) অর্থদণ্ড প্রদান করা হয়।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট উমর ফারুক বলেন, সরেজমিনে দেখা যায় তাকওয়া এন্টারপ্রাইজ নামের একটি প্রতিষ্ঠান বহুদিন ধরে মোড়কজাত নিবন্ধন সনদ ব্যাতিত পানি বোতলজাত করে আসছে। একজন ক্যামিস্ট নিয়োজিত থাকার কথা থাকলেও এখানে ক্যামিস্ট পাওয়া যায়নি। এ প্রতিষ্ঠানের এজেন্টরা বাইরে থেকে পানি বোতলজাত করে তাদের নামে বিক্রি করে আসছে।

তিনি আরও বলেন, এনায়েত বাজারে মিসকা ধানসিড়ি সুইটস নামে একটি বেকারি নোংরা পরিবেশে কেক,বিস্কুট, মিষ্টি, দই ও রুটি উৎপাদন করে আসছে। পণ্যের মোড়কে অগ্রীম তারিখ দেয়া এমনকি বিএসটিআইয়ের লাইসেন্স পর্যন্ত নেই।

নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট বলেন,ঝালবিতান নামের একটি স্টোরে নোংরা ও ভেজাল তেলে খাদ্য তৈরী করায় অর্থদণ্ড করা হয়।

ভেজাল খাদ্য পণ্য উৎপাদনের বিরুদ্ধে জেলা প্রশাসনের অভিযান অব্যাহত থাকবে। অভিযানে ছিলেন বিএসটিআইয়ের ফিল্ড অফিসার জারীন তাসনীম সিলি, পরিদর্শক মুকুল মৃধা ও সিএমপি পুলিশ সদস্য।