বাংলাদেশসহ পৃথিবী এখন কঠিন সময় পার করছে। সবখানেই একটি আতঙ্ক করোনাভাইরাস। যে ভাইরাসটি ইতোমধ্যে কেড়ে নিয়ে অনেক মানুষের প্রাণ। প্রস্তুতি হিসে দেশ নিয়ে সরকারি-বেসরকারি উদ্যোগ। চলছে ব্যক্তি পর্যায়ের কাজ। এরই ধারাবাহিকতায় ব্যতিক্রমী এক নিয়েছেন চট্টগ্রামের সন্তান জনস্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞ ডাঃবিদ্যুত বড়ুয়া।লাখ মানুষের ১০০ টাকায় হবে ‘করোনা ফিল্ড হসপিটাল’।

জানা যায়,করোনা আক্রান্ত রোগীদের জন্য এই হাসপাতাল হবে ফৌজদারহাট সলিমপুরে। দেশের শীর্ষস্থানীয় শিল্প প্রতিষ্ঠান নাভানা গ্রুপের সহায়তায় সলিমপুরে প্রতিষ্ঠানটির আফতাব অটোমোবাইলস লিমিটেড কারখানার ভেতরে ৬৮০০ বর্গফুটের দুই তলা একটি ভবনে এই অস্থায়ী হাসপাতাল গড়ে তুলছেন লোহাগাড়ার সন্তান প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়ার ছোট ভাই ডাঃ বিদ্যুত বড়ুয়া।

ডাঃ বিদ্যুত বড়ুয়া
ডাঃ বিদ্যুত বড়ুয়া

এ ব্যপারে ডাঃবিদ্যুত বড়ুয়া বলেন,করোনার দুর্যোগ মোকাবেলায় চট্টগ্রামবাসীর সহায়তা নিয়ে আমি এই ফিল্ড হসপিটাল গড়ে তুলতে চাই। তাই সাধারণ মানুষের কাছ থেকে ১০০ টাকা করে ১ কোটি টাকার অনুদান সংগ্রহ করার উদ্যোগ নিয়েছি। এতে মানুষ মনে করবে এটা আমার হসপিটাল। মানুষ তার নিজের হসপিটালে চিকিৎসা নিতে আসবে।

তিনি জানান, দুই-একদিনের মধ্যে একটি বিকাশ নম্বরের মাধ্যমে সামর্থবান মানুষের কাছ থেকে অর্থ সংগ্রহ করা হবে। কেবল করোনা নয়, এ হসপিটালে প্রয়োজন হলে ডেঙ্গু, ম্যালেরিয়া আক্রান্ত রোগীদেরও চিকিৎসা দেওয়া হবে বলে জানান বিদ্যুত বড়ুয়া।

জানা গেছে,এ হাসপাতাল হবে ৫০-৬০ শয্যার। ইতোমধ্যে চট্টগ্রাম বিভাগীয় স্বাস্থ্য পরিচালক সরেজমিন পরিদর্শন করে এ হাসপাতাল নির্মাণে সম্মতি দিয়েছেন বলেও জানা গেছে।

উল্লেখ্য গত ২৫ মার্চ নিজের ফেসবুকে একটি স্ট্যটাস দিয়ে চট্টগ্রামে করোনা আক্রান্ত রোগীদের চিকিৎসার জন্য একটি হাসপাতাল গড়ে তুলতে সকলের সহযোগিতা চান ডাঃ বিদ্যুত বড়ুয়া। তার এই আহ্বানে সাড়া দিয়ে এগিয়ে আসে নাভানা গ্রুপসহ অনেকে।